ঢাকা ০৪:৪৪ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
গৃহবধুকে ধর্ষনের পর হত্যা, ২ ঘাতক গ্রেপ্তার ঠাকুরগাঁওয়ে দ্বিতীয় ধাপে দু’টি উপজেলায় নতুন প্রার্থী বিজয়ী ঠাকুরগাঁওয়ে দ্বিতীয় ধাপে দু’টি উপজেলায় নতুন প্রার্থী বিজয়ী উপজেলা নির্বাচনে প্রার্থী হওয়ায় সুকুমার রায়কে বিএনপি থেকে বহিষ্কার ঠাকুরগাঁও নারকোটিকস এর অভিযানে ভারতীয় টার্পেন্টাডল ট্যাবলেটের চালান ঠাকুরগাঁওয়ে নারকোটিকস’র অভিযানে মাদকের বড় চালান আটক পীরগঞ্জে জাতীয় পুষ্টি সপ্তাহ উপলক্ষে সভা অনুষ্ঠিত পীরগঞ্জে ৩০ পিস টার্পেন্টাডল সহ ২ মাদক ব্যবসায়ী আটক পীরগঞ্জে ১৫০ গ্রাম শুকনো গাজা সহ ব্যবসায়ী আটক ঠাকুরগাঁওয়ে ঠিকাদারদের নিয়ে এলজিইডি’র দিনব্যাপী কর্মশালা

জাফর ইকবালকে দেখতে এলেন প্রধানমন্ত্রী

সারাদিন ডেস্ক::বিশিষ্ট লেখক ও অধ্যাপক মুহম্মদ জাফর ইকবালকে ঢাকার সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) দেখতে গিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আজ সোমবার বেলা পৌনে একটার দিকে সেখানে যান তিনি।আধা ঘণ্টার বেশি সময় সিএমএইচে অবস্থান করেন প্রধানমন্ত্রী। এ সময় তিনি জাফর ইকবাল ও তাঁর স্ত্রী ইয়াসমিন হকের সঙ্গে কথা বলেন। প্রধানমন্ত্রী চিকিৎসাধীন জাফর ইকবালের শারীরিক অবস্থার খোঁজখবর নেন।মুহম্মদ জাফর ইকবালকে দেখতে সিএমএইচে যান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সেখানে তিনি জাফর ইকবালের শারীরিক অবস্থার খোঁজ খবর নেন। ফোকাস বাংলাআন্তবাহিনী জনসংযোগ পরিদপ্তরের (আইএসপিআর) সহকারী পরিচালক রেজাউল করিম বলেন, প্রধানমন্ত্রী জাফর ইকবালের চিকিৎসার খোঁজখবর নেন। এ ছাড়া জাফর ইকবাল ও তাঁর স্ত্রীর সঙ্গে কথা বলে বেলা দেড়টার দিকে সিএমএইচ ত্যাগ করেন তিনি।সিলেটের শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসে গত শনিবার বিকেলে এক অনুষ্ঠানে দর্শকসারিতে থাকা জাফর ইকবালের পেছন থেকে তাঁর ওপর ফয়জুর রহমান নামের এক যুবক ছুরি দিয়ে হামলা চালায়। হামলার পর রক্তাক্ত অবস্থায় জাফর ইকবালকে সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখান থেকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। তাঁর শরীরে ছয়টি আঘাত আছে। তবে তিনি শঙ্কামুক্ত।প্রধানমন্ত্রী চলে আসার সময় এগিয়ে দেন জাফর ইকবালের স্ত্রী ইয়াসমিন হক। সে সময়ও প্রধানমন্ত্রী তাঁর সঙ্গে কিছুক্ষণ কথা বলেন। সে সময়ও প্রধানমন্ত্রী তাঁর সঙ্গে কিছুক্ষণ কথা বলেন। রোববার ব্রিফিংয়ে সিএমএইচের কনসালট্যান্ট সার্জন মেজর জেনারেল মুন্সী মুজিবুর রহমান বলেন, অধ্যাপক জাফর ইকবালের মাথায় চারটি, পিঠের ওপরে ও বাঁ হাতে একটি করে আঘাত আছে। সব মিলিয়ে তাঁর শরীরে মোট ছয়টি আঘাত আছে। তিনি এখন শঙ্কামুক্ত। তাঁর মানসিক অবস্থাও ভালো।মুন্সী মুজিবুর রহমান বলেন, অধ্যাপক জাফর ইকবালের চিকিৎসায় পাঁচ সদস্যের একটি বোর্ড গঠন করা হয়েছে। সংক্রমণ রোধে এবং দ্রুত আরোগ্যের জন্য এখন তাঁর কাছে কাউকে যেতে দেওয়া হচ্ছে না।

Tag :

ভিডিও

এই অথরের আরো সংবাদ দেখুন

Azam Rehman

গৃহবধুকে ধর্ষনের পর হত্যা, ২ ঘাতক গ্রেপ্তার

জাফর ইকবালকে দেখতে এলেন প্রধানমন্ত্রী

আপডেট টাইম ০৪:৩৪:৩৪ অপরাহ্ন, সোমবার, ৫ মার্চ ২০১৮

সারাদিন ডেস্ক::বিশিষ্ট লেখক ও অধ্যাপক মুহম্মদ জাফর ইকবালকে ঢাকার সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) দেখতে গিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আজ সোমবার বেলা পৌনে একটার দিকে সেখানে যান তিনি।আধা ঘণ্টার বেশি সময় সিএমএইচে অবস্থান করেন প্রধানমন্ত্রী। এ সময় তিনি জাফর ইকবাল ও তাঁর স্ত্রী ইয়াসমিন হকের সঙ্গে কথা বলেন। প্রধানমন্ত্রী চিকিৎসাধীন জাফর ইকবালের শারীরিক অবস্থার খোঁজখবর নেন।মুহম্মদ জাফর ইকবালকে দেখতে সিএমএইচে যান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সেখানে তিনি জাফর ইকবালের শারীরিক অবস্থার খোঁজ খবর নেন। ফোকাস বাংলাআন্তবাহিনী জনসংযোগ পরিদপ্তরের (আইএসপিআর) সহকারী পরিচালক রেজাউল করিম বলেন, প্রধানমন্ত্রী জাফর ইকবালের চিকিৎসার খোঁজখবর নেন। এ ছাড়া জাফর ইকবাল ও তাঁর স্ত্রীর সঙ্গে কথা বলে বেলা দেড়টার দিকে সিএমএইচ ত্যাগ করেন তিনি।সিলেটের শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসে গত শনিবার বিকেলে এক অনুষ্ঠানে দর্শকসারিতে থাকা জাফর ইকবালের পেছন থেকে তাঁর ওপর ফয়জুর রহমান নামের এক যুবক ছুরি দিয়ে হামলা চালায়। হামলার পর রক্তাক্ত অবস্থায় জাফর ইকবালকে সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখান থেকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। তাঁর শরীরে ছয়টি আঘাত আছে। তবে তিনি শঙ্কামুক্ত।প্রধানমন্ত্রী চলে আসার সময় এগিয়ে দেন জাফর ইকবালের স্ত্রী ইয়াসমিন হক। সে সময়ও প্রধানমন্ত্রী তাঁর সঙ্গে কিছুক্ষণ কথা বলেন। সে সময়ও প্রধানমন্ত্রী তাঁর সঙ্গে কিছুক্ষণ কথা বলেন। রোববার ব্রিফিংয়ে সিএমএইচের কনসালট্যান্ট সার্জন মেজর জেনারেল মুন্সী মুজিবুর রহমান বলেন, অধ্যাপক জাফর ইকবালের মাথায় চারটি, পিঠের ওপরে ও বাঁ হাতে একটি করে আঘাত আছে। সব মিলিয়ে তাঁর শরীরে মোট ছয়টি আঘাত আছে। তিনি এখন শঙ্কামুক্ত। তাঁর মানসিক অবস্থাও ভালো।মুন্সী মুজিবুর রহমান বলেন, অধ্যাপক জাফর ইকবালের চিকিৎসায় পাঁচ সদস্যের একটি বোর্ড গঠন করা হয়েছে। সংক্রমণ রোধে এবং দ্রুত আরোগ্যের জন্য এখন তাঁর কাছে কাউকে যেতে দেওয়া হচ্ছে না।